শেষ হলো ‘গাঙ্গুবাই’ এর শুটিং

করোনাকালে নানা প্রতিকূলতা, একাধিক লকডাউন ডিঙিয়ে সঞ্জয়লীলা বানসালি তাঁর আলোচিত ছবির ‘গাঙ্গুবাই’-এর শুটিং অবশেষে শেষ হলো।

এবারে শুটিং-পরবর্তী কাজ করবেন ঘরে বসে। ছবির কেন্দ্রীয় চরিত্রের অভিনয়শিল্পী আলিয়া ভাট সম্প্রতি এ কথা জানিয়েছেন। তাঁর ক্যারিয়ারে এবারে যোগ হতে যাচ্ছে ব্যতিক্রমী আরেকটি চরিত্র।

রবিবার (২৭ জুন) আলিয়া ভাট তার সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ‘গাঙ্গুবাই’ -এর শুটিং সেট থেকে কিছু ছবি পোস্ট করেন। ছবিটির শুটিং শুরু হয়েছেল ২০১৯ সালে এবং রবিবার শুটিংটি শেষ হয়। বলিউডে কোনো ছবির শুটিং দুই বছর ধরে চলেছে, এমন ঘটনা কমই ঘটেছে।

অভিনেত্রী আলিয়া ভাট ইনস্টাগ্রামে লিখেছেন, ‘২০১৯ সালের ডিসেম্বরে “গাঙ্গুবাই” ছবির শুটিং শুরু হয় আর এই জুন মাসে শেষ হলো। মাঝের দুই বছর ছবির সেট দুটি লকডাউন, দুটি ঘূর্ণিঝড়, পরিচালক-অভিনেতার করোনা সংক্রমণের মুখোমুখি হয়েছে। অন্য ছবির মতোই এই ছবির শুটিং নানা কারণে বাধাগ্রস্ত হয়েছিল। কিন্তু এসব পেরিয়ে গত দুই বছরে আমি অনন্য অভিজ্ঞতা অর্জন করেছি।‘

সঞ্জয়লীলা বানসালির সঙ্গে কাজ করার অভিজ্ঞতা প্রসঙ্গে আলিয়া লিখেছেন, ‘সঞ্জয় স্যারের পরিচালনায় কাজ করা আমার ছোটবেলার স্বপ্ন। কিন্তু আমি মনে করি না সবকিছু আমার জন্য তৈরি হয়ে থাকবে। তাই গত দুই বছর আমি এই ছবির জন্য নিজেকে তৈরি রেখেছিলাম। এই ছবির সেট থেকে আমি এক অন্য মানুষ হয়ে বের হচ্ছি। আমাকে সঙ্গে রাখার জন্য ধন্যবাদ, স্যার। আপনার মতো মানুষ হয় না।‘ 

ওই পোস্টে আলিয়া আরও লিখেছেন, ‘একটা ছবির শুটিং শেষ মানে অভিনয়শিল্পীর একটা সত্তা শেষ হয়ে যাওয়া। আজ এই ছবির শুটিংয়ের সঙ্গে আমারও একটা সত্তা শেষ হলো। গাঙ্গু, আই লাভ ইউ। তোমাকে মিস করব।‘

মেয়ের এই পোস্টের নিচে মা সোনি রাজদান লিখেছেন, ‘এই লেখা আমার চোখে জল এনে দিল। এটা অবশ্যই এক অনবদ্য যাত্রা।‘

মন্তব্য লিখুন :